প্রচ্ছদ / জাতীয় / বিস্তারিত

For Advertisement

750px X 80px

Call : +8801911140321

মিয়ানমারের অভিযোগ অস্বীকার বাংলাদেশের

কারেন্ট নিউজ বিডি   ১০ জানুয়ারি ২০১৯, ১২:০০:১৮

বাংলাদেশে মিয়ানমারের সশস্ত্র বৌদ্ধ বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠন ‘আরাকান আর্মি’ এবং রোহিঙ্গাদের বিদ্রোহীদের সংগঠন আরকান স্যালভেশন আর্মি বা ‘আরসা’র পাঁচটি ঘাঁটি রয়েছে বলে অভিযোগ করে মিয়ানমারের মন্ত্রী যে বিবৃতি দিয়েছেন তার কড়া প্রতিবাদ জানিয়েছে ঢাকা।

বুধবার বাংলাদেশের পক্ষ থেকে একটি প্রতিবাদ পাঠানো হয়। ওই প্রতিবাদলিপিতে বলা হয়, মিয়ানমারের প্রেসিডেন্ট অফিসের মুখপাত্রের বরাদ দিয়ে কয়েকটি গণমাধ্যমের প্রতিবেদনে বাংলাদেশ সরকার জানতে পেরেছে যে, বাংলাদেশে মিয়ানমারের বিদ্রোহী জঙ্গি গোষ্ঠী আরসার দু’টি ঘাঁটি ও আরাকান আর্মির তিনটি ঘাঁটি রয়েছে বলে অভিযোগ করেছে মিয়ানমার। তবে মিয়ানমারের এই অভিযোগ পুরোপুরি মিথ্যা ও ভিত্তিহীন। বাংলাদেশের কোথাও কোনো এলাকায় জঙ্গি ও বিদ্রোহী গোষ্ঠীর কর্মকাণ্ড পরিচালনা করা সম্ভব নয়। কেননা বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন সরকার পুরোপুরি জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতি গ্রহণ করেছে।

For Advertisement

750px X 80px
Call : +8801911140321

প্রতিবাদলিপিতে আরও বলা হয়, বাংলাদেশ প্রতিশ্রুতিবদ্ধ যে, দেশের মাটিতে বসে কোনো জঙ্গি গোষ্ঠীর কর্মকাণ্ড পরিচালনা করতে দেওয়া হবে না। অভ্যন্তরীণ রাজনৈতিক ও সামাজিক সমস্যার জন্যই মিয়ানমারের বর্তমান অস্থিরতা বিরাজমান। মিয়ানমারের অভ্যন্তরীণ সমস্যার দায় বাংলাদেশের ওপর না চাপালেই বাংলাদেশ সন্তোষ প্রকাশ করবে।”

উল্লেখ্য, মিয়ানমারের সংবাদমাধ্যম ইরাবতী এক খবরে জানায়, মিয়ানমার সরকারের মুখপাত্র জ হতেই সোমবার এক সংবাদ সম্মেলনে আরসার সঙ্গে আরাকান আর্মির সম্পর্ক এবং বাংলাদেশে তাদের ঘাঁটি থাকার অভিযোগ করেন। গত বছরের জুলাই মাসে কক্সবাজারের রামুতে উভয় সংগঠনের নেতারা বৈঠকও করেছেন বলে তিনি দাবি করেন।

For Advertisement

750px X 80px

Call : +8801911140321

কারেন্ট নিউজ বিডি'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। 

পাঠকের মতামত: