প্রচ্ছদ / খেলাধুলা / বিস্তারিত

ইডেন থেকে ইমরানের ছবি সরাতে রাজি হলেন সৌরভ

২৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৯, ৭:২০:১১

দেরিতে হলেও ইডেন গার্ডেন্স থেকে পাকিস্তানের ক্রিকেটারদের ছবি সরাতে বাধ্য হল সিএবি। পুলওয়ামা ঘটনার পর ভারতের অনেক স্টেডিয়াম থেকেই পাকিস্তান ক্রিকেটারদের ছবি সরিয়ে নেওয়া হলেও এব্যাপারে সদিচ্ছা দেখাননি সিএবি প্রেসিডেন্ট সৌরভ গাঙ্গুলী। কিন্তু শনিবার(২৩ ফেব্রুয়ারি) ইডেন থেকে প্রাক্তন পাকিস্তান অধিনায়ক তথা প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানসহ অন্যান্য পাক ক্রিকেটারদের ছবি সরিয়ে নেওয়া হবে জানান সৌরভ।

শুক্রবারই হুঁশিয়ারি দিয়ে রেখেছিলেন দিলীপ ঘোষ। ইডেন থেকে ইমরান খানের ছবি না সরানো হলে ভবিষ্যতে যুব মোর্চা ধরনায় বসবে বলে হুমকি দেন তিনি। কথামতোই শনিবার ইডেন গার্ডেন্সের সামনে ধরনায় বসে বিজেপির যুব মোর্চা। ক্রিকেটের স্বর্গোদ্যান থেকে দ্রুত ইমরান খানের ছবি সরানোর দাবিতে বিক্ষোভ দেখান তারা। ঘটনায় পুলিশের সঙ্গে ধস্তাধ্বস্তিও হয় বিক্ষোভকারীদের। গ্রেফতার হন রাজু বন্দোপাধ্যায়সহ বিজেপি’র অন্যান্য নেতারা।

কাশ্মীর উপত্যকায় ভারতীয় জওয়ানদের উপর বর্বরোচিত নাশকতার প্রতিবাদে অন্য রাজ্যের ক্রিকেট সংস্থাগুলি যখন ইতিমধ্যেই পাকিস্তানের বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক তথা বর্তমান প্রশাসনিক ক্যাপ্টেন ইমরান খানের ছবি সরিয়ে ফেলেছে, তখন সিএবি কেন কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে দেরি করছে? এই প্রশ্ন তুলে পাক ক্রিকেটারের ছবি না সরালে শনিবার ইডেনের সামনে বিক্ষোভের হুঁশিয়ারি দেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ৷ শনিবার দুপুর ১টায় বাবুঘাট থেকে ইডেন পর্যন্ত যুব মোর্চার মিছিলের ডাক দেন তিনি।

কথামতোই এদিন ইডেনের সামনে ‘ডাউন…ডাউন ইমরান খান’ লেখা প্ল্যাকার্ড হাতে বিক্ষোভে জমায়েত হয় যুব মোর্চার সদস্যরা। মূলত যুব মোর্চার এই মিছিলে পা মেলান কিছু বিজেপি নেতাও। নিরাপত্তারক্ষীদের সঙ্গে বচসায় জড়িয়ে পড়েন যুব মোর্চার সদস্য সহ বিজেপি নেতারা। পরে পুলিশ তাদের গ্রেফতার করে।

পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলার ঘটনার পর দেশের বিভিন্ন স্টেডিয়াম থেকে সরিয়ে ফেলা হয়েছে পাক ক্রিকেটারদের ছবি৷ বোর্ডের মুম্বাই হেডকোয়ার্টার থেকেও পাকিস্তানের ক্রিকেটারদের স্মৃতি সরিয়ে ফেলা হয়েছে৷ এরপরই যুব মোর্চার বিক্ষোভের আবহে অবশেষে ক্রিকেটের স্বর্গোদ্যান ইডেন গার্ডেন্স থেকে ইমরানসহ পাক ক্রিকেটারদের ছবি সরানোর সিদ্ধান্ত নিলেন সিএবি প্রেসিডেন্ট।

কারেন্ট নিউজ বিডি'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। 

পাঠকের মতামত: