প্রচ্ছদ / ময়মনসিংহ / বিস্তারিত
 

For Advertisement

600 X 120

শিক্ষকের বেত্রাঘাতে মাদ্রাসার ১০ শিক্ষার্থী আহত

৯ মার্চ ২০১৮, ৫:২৭:৫৩

ঢাকা০৯ মার্চকারেন্ট নিউজ বিডিজামালপুরের দেওয়ানগঞ্জে টিফিনে গিয়ে দেরিতে ফেরার কারণে বাহাদুরাবাদ এ রব আলিম মাদ্রাসার ১০ ছাত্রকে বেত্রাঘাতে আহত করেছেন এক সহকারী অধ্যাপক। আহত ছাত্রদের উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রে ভর্তি করা হয়েছে।

এই ঘটনায় অভিভাবকরা ওই শিক্ষককে মাদ্রাসায় আটকিয়ে রাখেন। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল গিয়ে জনরোষ থেকে তাকে উদ্ধার করে।

 

For Advertisement

600 X 120

মাদ্রাসা শিক্ষার্থীরা ও অভিভাবকরা জানায়, দুপুরের ছাত্ররা টিফিনে গিয়ে মাদ্রাসায় আসতে দেরি করায় সহকারী অধ্যাপক শফিউল্লাহ্ ওরফে মজনু ১০/১২ জন ছাত্র-ছাত্রীকে  বেত দিয়ে বেধড়ক পেটাতে থাকেন। এক পর্যায়ে সৌরভ ও ফাহিমসহ কয়েকজন মাটিতে লুটিয়ে পড়ে। এসময় অন্যান্য শিক্ষার্থীদের চিৎকারে আশপাশের লোকজন ছুটে এসে আহত ১০ জনকে উদ্ধার করে দেওয়ানগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে ভর্তি করে। এদের মধ্যে দাখিলের ফাহিম ও সৌরভ, মাহফুজুর, তানজীনা, শরিফুল, ইসয়ামিন ও শীলা হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে। এদের মধ্যে সৌরভ ও ফামিনের অবস্থা গুরুতর। অন্য তিনজন প্রাথমিক চিকিৎসার হাসপাতাল থেকে চলে গেছে।

এই ঘটনায় ক্ষুব্ধ অভিভাবকরা মাদ্রাসায় গিয়ে শিক্ষকদের ঘেরাও করে রাখেন। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে জনরোষ থেকে শিক্ষক শফিউল্লাহকে উদ্ধার করে।

দেওয়ানগঞ্জ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. আব্দুল লতিফ মিয়া ছাত্র-ছাত্রীদের বেত্রাঘাতে আহত করার ঘটনা স্বীকার করে বলেন, ওই শিক্ষককে উদ্ধারের পর ম্যানেজিং কমিটির ও মাদ্রাসা কর্তৃপক্ষ বিষয়টি স্থানীয়ভাবে মীমাংসা করার দায়িত্ব নেয়ায় তাকে থানায় আনা হয়নি।

 

For Advertisement

600 X 120

কারেন্ট নিউজ বিডি'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। 

পাঠকের মতামত: