প্রচ্ছদ / রাজনীতি / বিস্তারিত

For Advertisement

750px X 80px Call : +8801911140321

আর কতটা পা চাটবেন: জাফরুল্লাহ

কারেন্ট নিউজ বিডি   ৫ সেপ্টেম্বর ২০২০, ৪:০৫:১৫

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেছেন, এমাজউদ্দিন আহমেদ পরিষ্কারভাবে বিভিন্ন সময় বলেছিলেন, ভারত থেকে সাবধান থাকতে হবে। উনার এই সাবধান বাণীকে সরকার কীভাবে নিলেন, তাদের (ভারতের) একজন রাষ্ট্রপতির মৃত্যুতে তারা একদিনের রাষ্ট্রীয় শোক পালন করলেন। অথচ হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি শেখ মুজিবুর রহমানের জন্ম কিংবা মৃত্যুদিবস ভারতে কখনো রাষ্ট্রীয়ভাবে পালিত হয়নি। আর কতটা পা চাটবেন।

শনিবার (৫ সেপ্টেম্বর) দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য বিশিষ্ট রাষ্ট্রবিজ্ঞানী অধ্যাপক ডা. এমাজউদ্দিন আহমেদ স্মরণে ‘জাতীয় স্মরণ মঞ্চ’ আয়োজিত নাগরিক শোকসভায় তিনি এসব কথা বলেন।

For Advertisement

750px X 80px
Call : +8801911140321

ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, আমি বারবার বলেছি, দেশের বিভিন্ন সমস্যা ভারতের সৃষ্টি। চীনারা সোনাদিয়া দ্বীপে সমুদ্রবন্দর করবে বলেছিল, কিন্তু ভারতীয়রা অসন্তুষ্ট হয়েছে, তাই এটা আর হবে না। চীন যারা আমাদের পক্ষে ছিলেন, তারা আমাদের ছেড়ে অন্যদিকে গেলেন। এই জিনিসটা বিভিন্ন সময় এমাজউদ্দিন সাহেব বলেছেন।

তিনি বলেন, আমি মানববন্ধনে বলেছি, এই প্রণববাবু আমাদের কী কী উপকার করেছে, তার একটা হিসাব করি। ফেলানি যখন মারা যায়, তার বিচারটা পর্যন্ত তিনি করেন নাই। তিনি কী বলেছিলেন, ঢাকার ভারতীয় হাইকমিশনের রাস্তাটাকে ফেলানির নামে নাম করা হোক। রাষ্ট্রপতি হিসেবে প্রণববাবু কোনোদিন এসবের প্রতিবাদ করেননি।

সরকারের উদ্দেশে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা বলেন, কোনো না কোনো সময় তো পরিবর্তন হবে, তখন আপনাদের ভুল শাসনের, দুঃশাসনের বিচার হলে আপনাদের কত বছরের সাজা হবে?

তিনি বলেন, আজ দেশবাসী চায়, আমরা রাস্তায় দাঁড়াই। আমরা রাস্তায় দাঁড়াতে দেখলে তারা প্রথম দিন, দ্বিতীয় দিন না আসলেও তৃতীয় দিন ঠিকই আমাদের পাশে এসে দাঁড়াবে। তারা আসবে। এই কথাটা প্রধানমন্ত্রী জানেন, কিন্তু তিনি বিশ্বাস করেন না।

ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেন, ভারতীয়দের সাহায্য নিয়ে বিএনপি কখনই ক্ষমতায় আসতে পারবে না। বিএনপি ক্ষমতায় আসবে তার জনগণের সমর্থন নিয়ে।

For Advertisement

750px X 80px Call : +8801911140321

কারেন্ট নিউজ বিডি'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। 

পাঠকের মতামত: